ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় জ্যান্ত গরুর পেট কেটে নাড়িভুঁড়ি খেয়ে ফেলল কিশোর!


রান্না করা গরুর মাংস সবাই পছন্দ করে। তাই বলে মাঠে চরতে থাকা জ্যান্ত গরু ধরে জীবিত অবস্থায় তার পেট কেটে এর রক্ত, অণ্ডকোষ, ভুঁড়ি, নাভি কাঁচা খেয়ে ফেলতে পারে মানুষ? অদ্ভুত ও অবাক করা এমন ঘটনা ঘটিয়েছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার তারেক (১৮) নামে এক কিশোর। সোমবার (১০ নভেম্বর) দুপুরে জেলার আখাউড়া পৌর এলাকার তারাগনে এ ঘটনা ঘটে।

এলাকাবাসী সূত্র জানায়, মাঠে ঘাস খাওয়া এক গরুকে ধরে প্রাণীটির চার পা বেঁধে এটিকে মাটিতে ফেলে দেয় তারেক। এরপর গরুটির পায়ুপথ ও এর আশপাশের অংশ ধারাল ছুরি দিয়ে কেটে গরুর রক্ত, অণ্ডকোষ, ভুঁড়ির কিছু অংশ, নাভি ইত্যাদি প্রত্যঙ্গ কেটে বের করে এনে খেয়ে ফেলে। এমন খবর মুহূর্তে এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে আশপাশের শত শত লোক ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন। এ ঘটনার পর ওই কিশোরকে স্থানীয় লোকজন আটক করে। আটক তারেক একই এলাকার মো. আমাল খাঁর ছেলে।

ঘটনা সম্পর্কে গরুর মালিক মো. আবু তাহের মিয়া বলেন, ‘কিছুদিন আগে প্রায় ৫০ হাজার টাকা দিয়ে তিনি গরুটি কেনেন। প্রতিদিনের মতো গরুটিকে বাড়ির কাছের খোলা মাঠে ছেড়ে দিয়ে ঘাস খেতে দেন তিনি। দুপুরে গরুটিকে দেখতে গেলে তিনি দেখেন রক্তাক্ত অবস্থায় প্রাণীটি মাটিতে পড়ে আছে ও ছটফট করছে। সেই সাথে গরুর নারী-ভুঁড়ি, নাভিও পড়ে আছে। এ অবস্থায় ওই ছেলে আমাকে দেখতে পেয়ে দ্রুত পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। তার পোশাকে রক্ত দেখে তাকে সন্দেহ করি। পরে স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় ধাওয়া করে তাকে আটক করা হয়। এরপর সে গরুর পেছনের অংশ কেটে ওইসব খেয়েছে বলে স্বীকার করে। এদিকে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ হওয়ায় গরুটি নিস্তেজ হয়ে পড়ে। পরে লোকজনের পরামর্শে গরুটিকে জবাই করা হয়।’

আক্ষেপ করে গরুর মালিক মো. আবু তাহের আরও বলেন, ‘অনেক কষ্ট করে এই গরুটি ক্রয় করেছিলাম। কিন্তু এ ঘটনায় আমার বড় ধরনের ক্ষতি হয়েছে।’

আখাউড়া পৌরসভার ৯ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মো. মানিক মিয়া সাংবাদিকদের বলেন, এটি একটি দুঃখজনক ঘটনা। ধারণা করা হচ্ছে ওই ছেলেটি মানসিক সমস্যা রয়েছে। ওই ছেলের পরিবারকে খবর দেওয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে আখাউড়া উপজেলা প্রাণীসম্পদ কর্মকর্তা মো. কামাল বাশার সাংবাদিকদের বলেন, ‘ঘটনাটি শুনে দ্রুত খোঁজ খবর নিতে লোক পাঠিয়েছিলাম। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে কিশোরটির মানসিক সমস্যার কারণে এ ঘটনা ঘটেছে। তাকে দ্রুত চিকিৎসা দেওয়া প্রয়োজন।’

এদিকে খবর পেয়ে তারেকের বাবা মো. আমাল খাঁ ঘটনাস্থলে এসে ক্ষতিগ্রস্ত গরুর মালিককে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার আশ্বাস দিয়ে ছেলেকে উদ্ধার করে নিয়ে গেছেন। তিনি সাংবাদিকদের জানান, তার ছেলে মানসিক সমস্যায় ভুগছে। সে এমনটা কেন করলে তিনি নিজেও বুঝতে পারছেন না। তিনি চিকিৎসকের শরণাপন্ন হবেন।


আজব খবর

পরবর্তী পোস্ট

ঘুমন্ত স্বামীর গোপনাঙ্গ কেটে দিল স্ত্রী!

বুধ নভে ১১ , ২০২০
ঘুমন্ত স্বামীর গোপনাঙ্গ কেটে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে স্ত্রীর বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার (১০ নভেম্বর) ভোর ৫টার দিকে নীলফামারীর সৈয়দপুরে উপজেলা শহরের উত্তরা আবাসনে। ঘটনার পর গুরুতর আহত স্বামী নাসিম মিয়াকে (২৪) রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। নাসিম ওই আবাসনের হাফিজ মিয়ার ছেলে। এ ঘটনায় বাদী হয়ে সৈয়দপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন আহতের বড় বোন মুক্তা। মামলার পরিপ্রেক্ষিতে স্ত্রী রুমা খাতুনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, উত্তরা ইপিজেডের কর্মী রুমা খাতুনের (২২) সঙ্গে তার স্বামী […]