Grandson married to grandmother : লুডু খেলতে গিয়ে দাদি-নাতির প্রেম, অবশেষে বিয়ে!


দীর্ঘদিনের প্রেম। অবশেষে সেই প্রেম থেকে প্রণয়। বিধবা দাদিকে বিয়ে করলেন নাতি। এ বিয়েতে কাবিন ধরা হয়েছে পাঁচ লাখ টাকা। ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার (৬ সেপ্টেম্বর) ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলার বড়হিত ইউনিয়নের নওপাড়া গ্রামে। এ নিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, নওপাড়া গ্রামের মৃত ছামছুদ্দিন ওরফে শামের ৫৫ বছর বয়সী স্ত্রী শিরীনা আক্তারের সঙ্গে প্রতিবেশী আব্দুর রশিদের ২০ বছর বয়সী ছেলে ফারুক মিয়ার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। তারা সম্পর্কে দাদি-নাতি। দাদার মৃত্যুর পর থেকে তাদের মধ্যে গোপন প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। দাদির বাড়িতে প্রতিদিন আসা-যাওয়া এবং লুডু খেলতে খেলতে নাতির সঙ্গে সম্পর্ক গাঢ় হয়। এ নিয়ে এলাকাবাসীর মধ্যে নানা কাঁনাঘুষা চলছিল।

দাদি-নাতির অনৈতিক সম্পর্ক স্থানীয়দের হাতে গত শুক্রবার রাতে ধরা পড়ে। এতে এলাকায় ব্যাপক তোলপাড়ের সৃষ্টি হয়। পরে স্থানীয় মাতবররা বিষয়টি মীমাংসার জন্য নানান ফন্দি ফিকির করে দফায় দফায় সালিশ বৈঠক করেন। এতেও কোনো সুরাহা হয়নি। অবশেষে সোমবার রাতে পাঁচ লাখ টাকা কাবিন নামায় তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়। দাদি ও নাতির বিয়ে সম্পন্ন হওয়ায় এলাকায় হাসির রোল পড়েছে। কাবিনের বিষয়টি কাজী নূরুল্লাহ নিশ্চিত করেছেন।


আজব খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

পরবর্তী পোস্ট

26-year-old man trapped inside body of a baby : বয়স ২৬ বছর, অথচ তিনি এক বছরের শিশু!

বুধ সেপ্টে ৮ , ২০২১
বয়স ২৬ বছর। টগবগে যুবক। না, বয়স ২৬ হলেও মনপ্রীত সিং নামের এই যুবক এখনও শিশুই রয়ে গেছেন। স্বাভাবিক মানুষের মতো জীবন উপভোগ করতে পারেননি। বিরল এক রোগে আক্রান্ত হয়ে অন্যদের মতো বেড়ে উঠতে পারেননি তিনি। বয়স যখন ১১ মাস, তখন মনপ্রীতের শারীরিক ও মানসিক বিকাশ থমকে যায়। এ কারণে কথা বলতেও শেখেননি মনপ্রীত। বিরল এক রোগে আক্রান্ত হওয়ায় সঠিক চিকিৎসাটুকুও পাননি তিনি। ১৯৯৫ সালে ভারতের পাঞ্জাব রাজ্যে জন্মগ্রহণ করেন মনপ্রীত সিং। জন্মের পর তিনি আর পাঁচটি স্বাভাবিক শিশুর মতোই […]